Mon. Mar 25th, 2019

কেয়ামতের দিন । হাশরের ময়দান । বিচার দিবস । জান্নাত ও জাহান্নামে কারা যাবে?

পোস্ট শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
46 Views

ভিডিওতে দেখুন 

 

আল্লাহ তাআলা মানুষকে আশরাফুল মাখলুকাত হিসেবে সৃষ্টি করেছেন। তাদের জীবনে রয়েছে তিনটি ধাপ বা পর্ব। জীবনের এ পর্বগুলো হলো- দুনিয়ার জীবন, কবর জীবন, অতঃপর কিয়ামত ও বিচার দিবস পরবর্তী জান্নাত বা জাহান্নামের স্থায়ী জীবন।

আল্লাহ তাআলা মানুষের দুনিয়ার জীবনের চূড়ান্ত সমাপ্তির জন্য কিয়ামত অনুষ্ঠিত করবেন। এজন্য আল্লাহ তাআলা হজরত ইসরাফিল আলাইহিস সালামকে কিয়ামত অনুষ্ঠিত করতে শিঙ্গায় ফুৎকারের দায়িত্ব দিয়ে রেখেছেন।

হজরত ইসরাফিল আলাইহিস সালাম নির্দিষ্ট সময়ে আল্লাহর হুকুমে প্রথম ফুৎকার দিলে দুনিয়ার জীবনে মানুষসহ সব সৃষ্টির অস্তিত্ব শেষ হয়ে যাবে। অতঃপর দ্বিতীয়বার শিঙ্গায় ফুৎকার দেয়ার নির্দেশ পেলে তিনি তা কার্যকর করবেন।

শিঙ্গায় দ্বিতীয় ফুৎকারের মাধ্যমে সব মৃতদের জীবিত করা হবে, তখন সব মানুষ কবর থেকে উঠে জুতা-স্যান্ডেল ছাড়া, খালি শরীরে, খাৎনাবিহীন অবস্থায় হাশরের ময়দানে একত্রিত হবে। হাশরের ময়দানে মানুষ তিনটি অবস্থায় উত্থিত হবে। একদলবাহনে করে, একদল পদব্রজে,. একদল মাথায় হেঁটে। এবং প্রত্যেক ব্যক্তি যে আক্বিদা ও বিশ্বাসের ওপর মৃত্যুবরণ করেছে তার ওপর উত্থিত হবে। পরকালে বিচারের জন্য কবর থেকে উঠে সব মানুষ হাশরের মাঠে উপস্থিত থাকবে। পৃথিবীই হবে হাশরের মাঠ।, পৃথিবীর উপরিভাগে একটি চাদর রয়েছে, একে পার্শ্ব ধরে টান দেওয়া হবে। ফলে গাছপালা, পাহাড়-পর্বত সাগরে পতিত হবে। অতঃপর সমতল হয়ে যাবে।

হাশরের মাঠে আল্লাহ্‌ আমাদের বিচার শুরু করবেন। ধনী গরীব, ছোট বড় সবার বিচার একসাথে হবে। সেদিন আমাদের আমলনামার বই খোলা হবে। সারাজীবন আমরা যত খারাপ কাজ করেছি, সেগুলোর জন্য আল্লাহ্‌ জবাব চাইবেন, আল্লাহ্‌ তাঁর অসীম অনুগ্রহে হয়ত ক্ষমা করে দেবেন। আর যত ভালো কাজ করেছি, সেগুলো তিনি আমাদেরকে দেখাবেন। কিয়ামত হচ্ছে আমাদের সব পাপের ফয়সালা করে, আমাদেরকে পবিত্র করে জান্নাতের জন্য তৈরি করার জায়গা। জান্নাত পবিত্র মানুষদের জায়গা। সেখানে অপবিত্রদের প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না। যারা কিয়ামতের বিচারে পাশ করে আল্লাহর অনুগ্রহে পবিত্র হয়ে জান্নাতে যেতে পারবেন, তাদের জন্য বিরাট সুখবর। আর যাদের এত পাপ জমে থাকবে যে, বিচার শেষেও তাদের পাপের পাল্লা ভারি থাকবে, তাদের পরিণতি হবে জাহান্নাম।

  • নিজের মেয়ের সাথেই অন্যায় কাজ করা ব্যাক্তির বিচার
  • নিজের স্ত্রীকে হত্যা করে, পর নারীর সাথে সম্পর্ক করা পুরুষদের বিচার হবে এমন।
  • ব্যাভিচারি নারী বহু পুরুষের সাথে অবৈধ সম্পর্ক জড়ায়। স্বামী থাকতেও পরকীয়া করে এমন নারীর পরিণাম দেখুন।
  • টাকা থাকা সত্বেও গরীব মিসনকিনদের সাহায্য না করে, ফুর্তি একজন পাপী ব্যাক্তির বিচার
  • মানুষের তৈরী মুর্তিকে পূজা করে আল্লাহর সাথে শিরক করা এক ব্যাক্তির বিচার
  • রোগীদের কথা চিন্তা না করে অবৈধ পথে টাকা আয় করা একজন ডাক্তার


দুনিয়াতে যারা অন্যায় কাজ করেছে, পাপকাজ করেছে, অসহায় মানুষদের আর্তনাদ শুনেনি তাদের জাহান্নামের আগুনে নিক্ষেপ করা হবে। সেই জাহান্নাম যে জাহান্নামের আগুন কখনো নিভভবে না। যে জাহান্নামের কীট পতঙ্গ কখনোই মরবে না।

  • অসহায় মানুষদের সাহায্যকারী, এবং তাদের দ্বীনের পথে আহব্বানকারী এক ব্যাক্তি
  • একজন মহিলা যিনি গরীব হয়েও সৎ পথে উপার্জন করেন এবং আল্লাহ্‌র ইবাদত করতেন।
  • অনাহারী মানুষের মুখে খাবার তুলে দেয়া এবং অন্যদের সাহায্য করা এক ব্যাক্তি
  • আল্লাহর বানী শুনে, অনুতপ্ত হয়ে তওবা করা এক নারীর বিচার
  • সৎ পথে চলা এবং অন্যায়ের প্রতিবাদ করা এক যুবক, যে মানুষের সাহায্য করতে গিয়ে নিজের জীবন দিয়েছে

দুনিয়াতে যারা ভালো কাজ করেছে, আল্লাহর ইবাদাত করেছে, অসহায় মানুষদের সাহায্য করেছে। তারা সবাই জান্নাতে যাবে। আপনি যদি জান্নাতে যেতে চান তাহলে ঈমান মজবুত করুন। পাপ কাজ ছেড়ে দিন। রাসূলের দেখানো পথে চলুন। পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ আদায় করুন। আল্লাহ্‌ আমাদের সবাইকে ক্ষমা করে দ্বীনের রাস্তায় চলার তৌফিক দান করুক আমিন।


জান্নাত ও জাহান্নামের বর্ণনা । জাহান্নাম জীবন ও হাশর । জাহান্নাম কেমন হবে । জাহান্নাম থেকে বাচার উপায় । কারা জাহান্নামী । কাদের জন্য আল্লাহ জাহান্নাম তৈরী করে রেখেছেন । জাহান্নাম কেমন হবে । যেসব কাজ জাহান্নামে নিয়ে যায় । কাদের জন্য জাহান্নাম অবধারিত । পাপ ও হারাম কাজ করলে জাহান্নামে যায় । বাড় গুনাহ ও বড় পাপ কোন গুলো । মানুষকে যেসব আমলে জাহান্নামের দিকে ধাবিত করে । জাহান্নাম কিভাবে মানুষদের আযাব দিবে । জাহান্নামে কি কি আছে । জাহান্নাম কেমন কঠিন হবে । জাহান্নাম কত গভীর । জাহান্নামী মানুষ কারা । জাহান্নামের ভয়াবহ আযাব । আজাব কোথায় হবে । মানুষ কেন জাহান্নামী হবে । শয়তাদের ধোকায় মানুষ জাহান্নামে যাবে । শয়তান মানুষকে জাহান্নামের দিকে ডাকে । শয়তাদের ফাদেঁ মানুষ বিপথগামী হয় । ফেরেশতা পাপীদের আযাব দিবে । বিচারের পর জান্নাত ও জাহান্নাম ফায়সালা হবে । জাহান্নাম আযাব থেকে রেহায় পাওয়ার উপায় কি । জাহান্নামের অধিবাসী কারা । জাহান্নাম পরিচিতি । জাহান্নাম কেমন হবে মুশরিক ও বেঈমানদের জন্য । হাশরের ময়দানে আল্লাহ বিচার । কবরের আজাব থেকে মুক্তির আমল কি । জাহান্নামের আগুন থেকে বাচতে হবে ।

জান্নাত ও জাহান্নাম, বিচার দিবস, জান্নাত, জাহান্নাম, জাহান্নামের শাস্তি, জাহান্নামের বিচার, কবরের আজাব, কেয়ামতের দিন, কিয়ামত, হাশরের ময়দান, হাশরের বিচার, কেয়ামতের দিন কি হবে, জাহান্নামী কারা, জান্নাত ও জাহান্নামের বিচার দিবস, bd news, banglanews24,

আরও পড়ুন

আপনার মতামত জানান